বিশাল বড় এক লেখা হবে তাই লেখাকে বেশ কিছু পর্ব করেছি।

আপনারা পড়ছেন পর্ব – ১। পরবর্তী পার্টগুলো পাওয়ার জন্য আমাদের সাথেই থাকুন।

গোল্ড ফিস!

নামটা শুনলেই চোখে ভাসে লাল বা সোনালী রঙের বড় লেজ এবং পাখনাওয়ালা সারা অ্যাকুরিয়াম জুড়ে নেচে-কুদে বাড়ানো একটি বড় সাইজের মাছ।

গোল্ডফিসের আদ্যপান্ত - ১ 1

অ্যাকুরিয়ামের মাছ পালার জগতে প্রথমেই যারা আসেন তাদের মধ্যে ৯০% বিভিন্ন রঙ্গীন মাছ বিক্রির দোকানে এই মাছটি দেখেই সিদ্ধান্ত নেন যে তারা অ্যাকুরিয়ামে রঙ্গীন মাছ পালবেন। তো, যারা তাদের অ্যাকুরিয়ামে মাছ পালার জীবনের প্রথম গোল্ড ফিস কেনার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন এই লেখাটি তাদের জন্যেই লেখা।

গোল্ডফিস পালন সম্পর্কে অনেক বিষয়ই আছে যেগুলো আসলে অনেকেই জানে না। এক্ষেত্রে বেশিরভাগ মানুষই যারা তাদের জীবনের প্রথম গোল্ডফিস কেনে (বিশ্বাস করবেন কিনা জানি না!) জানেই না যে কিভাবে এই মাছটা সঠিক যত্ন নিতে হয় এবং এটাও দেখা যায় যে শেষ পর্যন্ত এই মাছটির ঠিকানা হয় একটি ছোট জারে যাতে পানি ফিল্ট্রেশনের কোনো সিস্টেমই নেই। 

গোল্ডফিসের আদ্যপান্ত - ১ 2

যার ফলাফল হয় এই সুন্দর মাছটির নিম্ন মানের জীবন ধারণ এবং পরিশেষে মৃত্যু।

এই লেখায়, আমরা গোল্ডফিসের সঠিকভাবে যত্ন নেয়ার জন্যে কিছু প্রাথমিক (Basic) বিষয়গুলো সম্পর্কে জানবো। যেমনঃ এই মাছটি ইতিহাস, কি ধরণের গোল্ডফিস পাওয়া যায়, এই মাছটি খাওয়ানোর পদ্ধতি, এর বাসস্থান, প্রজনন ব্যবস্থা ইত্যাদি। 

তাহলে চলুন শুরু করা যাক। কি বলেন?

গোল্ডফিস মাছের ইতিহাসঃ

গোল্ডফিস মাছটি বৈজ্ঞানিক নাম হলো Carassius auratus। এটি মূলত Cypriniformes গোত্রের Cyprinidae পরিবারের অন্তর্ভুক্ত মিস্টি পানিতে বেঁচে থাকে এমন মাছ। এই মাছটি পৃথিবীতে সবচেয়ে বেশি ঘরে পালিত মাছ (রঙ্গীন মাছ হিসেবে)। 

গোল্ড ফিস মাছটি কার্প জাতীয় মাছের বেশ কাছাকাছি গোত্রের (Prussian carp এবং Crucian carp এর মধ্যে অন্তর্ভুক্ত) মূলত পূর্ব এশিয়ার স্থানীয় মাছ। এটি প্রাচীন চীনে প্রায় এক হাজার বছর আগে প্রথমবারের মতো পরিচিতি পেয়েছিল এবং এর পরে বিভিন্ন কৃত্রিম প্রজননের মাধ্যমে বিভিন্ন জাতের বিকাশ হয়েছে। গোল্ডফিশের জাতগুলি দেহের আকার, পাখনার ধরণ এবং রঙ অনেক ধরণের হয়ে থাকে। যেমনঃ সাদা, হলুদ, কমলা, লাল, বাদামী এবং কালো রঙের সংমিশ্রন।

গোল্ডফিসের আদ্যপান্ত - ১ 3

গোল্ডফিসকে সর্বপ্রথম একটি পৃথক জাত হিসেবে পরিচিত করা হয় T’ang Dynasty (618-907 AD) তে এবং তখন থেকেই এই মাছটি ঘরে পালিত মাছ হিসেবে পরিচিতি পায়। কিন্তু প্রথম ঘরে বদ্ধ অবস্থায় এই মাছ পালনের প্রমাণ পাওয়া যায় Sung Dynasty (960 AD) এর আমলে। ১০৩০ খ্রিষ্টাব্দে বিভিন্ন চায়নিজ লেখকদের লেখায় পাওয়া যায় যে, ঘরে পালিত গোল্ডফিস মাছটির জনপ্রিয়তা বেশ ভালোই ছিল। 

গোল্ডফিসের আদি বাসস্থানঃ

বিভিন্ন লেখা ও গবেষণা থেকে পাওয়া তথ্যমতে ধারণা করা হয় যে প্রথম চিনহিত গোল্ডফিসের আদি আবাসস্থল ছিল পূর্ব চীন অঞ্চলের মধ্য যা কি না বেইজিং এর উত্তরাঞ্চল থেকে ম্যাকাও এর দক্ষিণাঞ্চল পর্যন্ত বিস্তৃত।

Crucian Carp জাতীয় মাছকে গোল্ডফিসের আদি জাত হিসেবেই ধরা হয়ে থাকে কিন্তু, আধুনিক বিজ্ঞানের মাধ্যমে এটা এখন প্রমাণিত যে গোল্ডফিস আসলে Gibel অথবা Prussian Carp জাতীয় মাছ।

গোল্ডফিসের আদ্যপান্ত - ১ 4

বাছাইকৃত ব্রিডিংঃ

গোল্ডফিসের গোল্ড কালারটির মধ্যে অনেক রকমফের রয়েছে তার প্রধান কারণ হলো নির্দিষ্ট জাতের মধ্যে বাচাই করে ব্রিডিং করা যা কিনা উত্তরাধুনিক গোল্ডফিসের জাতের তৈরির প্রধান প্রক্রিয়া। এই প্রক্রিয়াটি গত ১০ শতাব্দী ধরে প্রচলিত আছে এবং যার ফলাফল হলো গোল্ডফিস পৃথিবীর সবচেয়ে জনপ্রিয় ঘরে পালা মাছ হিসেবে আজ প্রতিষ্ঠিত। গত ১০ শতাব্দী ধরে গোল্ডফিসের এই নির্দিষ্ট জাতের মধ্যে বাচাই করে ব্রিডিং করানো হয় যাতে মাছটির পাখনায়, শরীরের গঠন ও আকারে, রঙ্গে, লেজের আকারে পরিবর্তন আসে।

ফ্যান্সি গোল্ডফিসঃ কিভাবে এরা এলো?

এখন পর্যন্ত এমন কোনো প্রমাণ পাওয়া যায়নি যে ফ্যান্সি গোল্ডফিসের জাতটি উদ্ভাবন সাধারণ গোল্ডফিসের থেকেই করা হয়েছিলো। সর্বপ্রথম ফ্যান্সি গোল্ডফিসের দেখা পাওয়ার প্রমাণ পাওয়া যায় প্রায় ১২ শতাব্দীতে যা কিনা গোল্ডফিসের একটি জাতের মতো দেখতে খালি গায়ে সাদা রঙের মধ্যে কালো ফোটা ফোটা দাগ ছিলো। একটা চীনা লেখায় একটি বিজ্ঞাপান দেখা গিয়েছিলো ১২৭৬ সালে যাতে স্নো-হোয়াইট মাছ এবং এর সাথে গোল্ড, সিলভার ও অন্যান্য রঙের মাছ চীনের হ্যাংচো-তে (Hangchow)  বিক্রি হওয়ার কথা বলা আছে। এখন প্রতিনিয়ত গবেষণার মাধ্যমে গোল্ডফিসের নতুন জাতের উদ্ভাবন করা হচ্ছে আর পুরাতন জাতগুলির জনপ্রিয়তা কমছে এমনকি কিছু জাত সময়ের সাথে সাথে কালের গর্ভে হারিয়েও গেছে। 

গোল্ডফিসের ধরণঃ গোল্ডফিস সব ধরণের আকার এবং সাইজেই পাওয়া যায়

লেখাটির এই পর্যায়ে আমরা গোল্ডফিসের বিভিন্ন জাতের বৈশিষ্ট্য নিয়ে আলোচনা করবো।

এক লেজ বিশিষ্ট গোল্ডফিস (Single Tailed Gold Fish)

গোল্ডফিসের আদ্যপান্ত - ১ 5

Common Gold Fish: নামটাই বুঝিয়ে দিচ্ছে এটিই হচ্ছে সবচেয়ে সাধারণ জাতের মাছ এবং অন্যান্য সব গোল্ডফিসের জাত এই জাত থেকেই এসেছে। এই মাছটির আদি পুরুষ হচ্ছে Prussian Carp যা কিনা Feeder Fish নামেও পরিচিত। এই মাছের সবচেয়ে প্রচলিত রঙ হচ্ছে উজ্জ্বল কমলা।

গোল্ডফিসের আদ্যপান্ত - ১ 6

Comet Goldfish: এই জাতটি মার্কিন যুক্তরাস্ট্রে সবচেয়ে বেশি ঘরে পালা হয়। Common Goldfish এর সাথে মূল পার্থক্য হলো এর লেজের আকারে।

গোল্ডফিসের আদ্যপান্ত - ১ 7

Shubunkin: এই জাতের মাছগুলি বেশ শক্তপোক্ত এবং এর শরীরে মুক্তার মতোন আঁশ এবং প্যাটার্ণ থাকে।

গোল্ডফিসের আদ্যপান্ত - ১ 8

London Shubunkins: এই জাতের শরীর মোটাসোটা এবং ছোট হয়ে থাকে, পাখনা গোলাকার হয় এবং দেখতে Common Goldfish এর মতোনই হয়।

গোল্ডফিসের আদ্যপান্ত - ১ 9

American Shubunkins: London Shubunkins এর মতোনই দেখতে শুধু লেজের আকার ডিপ ফর্ক এবং পয়েন্টেড।

গোল্ডফিসের আদ্যপান্ত - ১ 10

Bristol Shubunkins: এই জাতের মাছের শরীর চিকন এবং এদের পাখনাগুলোর গড়ন বেশ ভালো, বড় সাইজের সাথে Forked ও লেজ গোলাকার।

গোল্ডফিসের আদ্যপান্ত - ১ 11

Nymph Goldfish: এই জাতের মাছগুলি ফ্যানটেইল জাতের মতোন দেখতে কিন্তু এদের পিছনে একটি Caudal এবং Anal Fin থাকে। এই জাতটি Fantails বা Ryukins এবং অন্য জাতের Fancy Goldfish এর সংকরের মাধ্যমে তৈরি করা হয়েছে। সব ধরণের সংকরকৃত Single Tailed Fancy Goldfish আসলে মূলত Nymph Goldfish

গোল্ডফিসের আদ্যপান্ত - ১ 12

দুই লেজ বিশিষ্ট গোল্ডফিস (Doubled-tailed Goldfish):

গোল্ডফিসের আদ্যপান্ত - ১ 13

এই ধরণের Fancy Goldfish এর পিছনের লেজ দুইটি থাকে এবং এর সাথে Anal Fin ও দুইটি থাকে। এরা সবচেয়ে বেশি জনপ্রিয় এবং সবধরণের গোল্ডফিসের মধ্যে দামিও বটে। এই ধরণের Fancy Goldfish এর মধ্যে আবার দুইটি ধরণ আছেঃ

লম্বাটে দেহের Doubled-tailed Goldfish:

Wakin Goldfish: এই জাতের মাছগুলি মোটামুটি Common GoldFish এর মতোই দেখতে কিন্তু এদের দুইটি Caudal ও Anal Fin থাকে। প্রায় সব ধরণের Fancy Goldfish এই জাত থেকে উদ্ভাবিত। 

গোল্ডফিসের আদ্যপান্ত - ১ 14

Jikin Goldfish: Wakin Goldfish এর মতোই দেখতে তবে এদের Caudal ও Anal Fin চওড়া হয়ে বাইরের দিকে বের হয়ে থাকে।

গোল্ডফিসের আদ্যপান্ত - ১ 15

ডিম্বাকার আকৃতির Doubled-tailed Goldfish:

এই ধরণের Goldfish হচ্ছে সবচেয়ে জনপ্রিয় ধরণের Goldfish এবং এরা দুই টাইপের হয়ে থাকেঃ

Dorsal Finned Varieties:

Fantail Goldfish: এই জাতটি আসলে Ryukin এর Western সংস্করণ এবং এদের শরীর ডিম্বাকৃতির আর দুইটি Caudal আর Anal Fins, একটি High Dorsal Fin এবং কোনো Shoulder Hump নেই।

গোল্ডফিসের আদ্যপান্ত - ১ 16

Ryukin Goldfish: এই জাতটি সাইজে ছোট, মোটাসোটা শরীর এবং Shoulder Hump আছে এবং এটা দেখতে অনেকটা Fantail Goldfish এর মতোন এবং এটা উদ্ভাবন হয়েছে Ryukyu দ্বীপে। 

গোল্ডফিসের আদ্যপান্ত - ১ 17

Pearlscale Goldfish: এই গোলাকার শরীরের গোল্ডফিসের পাখনা দেখতে অনেকটা Fantail Goldfish এর মতোন কিন্তু শরীরটা ছোট এবং গোলাকার। এদের শরীরে সাদা মুক্তোর মতো দেখতে ফোটা ফোটা আঁশ আছে। 

গোল্ডফিসের আদ্যপান্ত - ১ 18

Telescope Goldfish: এই জাতের মাছটি দেখতে Fantail Goldfish এর মতোই তবে এদের চোখ অনেক বড় তাই এরা অনেক দূরের জিনিস সহজে দেখতে পারে। এদেরকে এমন অ্যাকুরিয়ামে রাখা যাবেনা যে অ্যাকুরিয়ামে অনেক সূক্ষ্ম বা চোখা বস্তু থাকে যা কিনা এদের চোখকে ক্ষতিগ্রস্ত করতে পারে এমনকি অন্ধও করে দিতে পারে। 

গোল্ডফিসের আদ্যপান্ত - ১ 19

Black Moor Goldfish: এই জাতটি আরেকটি Telescope Goldfish এরই জাত কিন্তু আমরা অনেকেই মনে করি যে এটা নিজেই একটি আলাদা জাত। Black Moor Goldfish এর শরীরের রঙ মখমলে কালো অথবা ম্যাট কালো হয়ে থাকে।

গোল্ডফিসের আদ্যপান্ত - ১ 20

Oranda Goldfish: এই জাতের মাছের মাথার উপরে সিংহের কেশরের মত দেখতে আলাদা একটা প্রলেপ আছে। এই আলাদা প্রলেপটি বাদে এরা দেখতে Fantail Goldfish এর মতোই। 

গোল্ডফিসের আদ্যপান্ত - ১ 21

Curled-gill Goldfish: এই জাতের মাছের কানকোটা বাইরের দিকে কুচকানো ভাবে ঘোরানো এবং যেটা আসলেই একটা ভিন্নরকম জাত হিসেবে প্রতিষ্ঠা পেয়েছে গোল্ডফিশ লাভারদের কাছে।

গোল্ডফিসের আদ্যপান্ত - ১ 22

Veiltail Goldfish: এই জাতের মাছের পাখনা এবং লেজ দেখতে Veil এর মতোন এবং এই কারণে এই মাছের পাখনা এবং লেজ অন্যান্য মাছগুলো Nip করে আর তাছাড়া এই মাছটি খুবই আস্তে চলাচল করে।

গোল্ডফিসের আদ্যপান্ত - ১ 23

Tosakin Goldfish: এই গোল্ডফিশের জাতির একসাথে লাগানো Double Tail Fin যার একদম শেষ প্রান্তটা কুচকানো। এই স্পেশাল ব্রিডটি একটি আলাদা জাত যার পেছনের লেজ অনেক বড় এবং আনুভূমিকভাবে ছড়ানো। 

গোল্ডফিসের আদ্যপান্ত - ১ 24

Dorsal Finless Varieties: 

Egg Goldfish: এই জাতটি Wakin Goldfish জাতের মতোই কিন্তু এর কোনো Dorsal Fin নেই। 

গোল্ডফিসের আদ্যপান্ত - ১ 25

Pompom Goldfish: এই জাতের মাছটি দেখতে প্রায় Egg Goldfish এর মতোই লাগে তবে এদের নাকের ছিদ্রের দুই পাশে বড় ধরনের নাকের হাড় দেখতে পাওয়া যায় যাকে “Pompoms” বলা হয় এবং এটা মূলত Egg Goldfish থেকেই তৈরি হওয়া একটি জাত। 

গোল্ডফিসের আদ্যপান্ত - ১ 26

Lionhead Goldfish: এই জাতটিও দেখতে অনেকটা Egg Goldfish এর মতই তবে এদের মাথার বাইরের অংশটা অনেক বড় এবং নরম ও স্পঞ্জ টাইপের মতো দেখতে হয়। এইটাও Egg Goldfish এর থেকেই তৈরি করা জাত। 

গোল্ডফিসের আদ্যপান্ত - ১ 27

Ranchu Goldfish: এই জাতকে সরাসরি Lionhead Goldfish এর সাথে তুলনা করা হয় যদিও এদের লেজ এবং পাখনা কিছুটা নিচের দিকে হয় এছাড়াও এদের পিঠ কিছুটা ধনুকের মত বাঁকা হয় এবং পাখনাগুলো ছোট সাইজের হয় যা কিনা কিছুটা ভেতরের দিকে কোঁচকানো থাকে। 

গোল্ডফিসের আদ্যপান্ত - ১ 28

Celestial Eye Goldfish:  এই জাতের মাছের লেজ দুইটা এবং এদের উপরের দিকে ওঠানো Telescope Eye রয়েছে তাই এদেরকে দেখলে মনে হয় এরা আকাশের দিকে তাকিয়ে আছে এবং এদেরকে উদ্ভাবন করা হয়েছে Dorsal-Less Telescope Eye Goldfish থেকে।

গোল্ডফিসের আদ্যপান্ত - ১ 29

Bubble Eye Goldfish: এই ছোট সাইজের Bubble Eye Goldfish এর চোখ দুটোর পাশে দুটো পানি ভর্তি থলে থাকে এবং এগুলো অত্যন্ত পাতলা এবং যেকোনো সময় ফেটে যেতে পারে খুব সহজেই। 

গোল্ডফিসের আদ্যপান্ত - ১ 30

আজকের এই লেখায় মূলত গোল্ডফিসের পরিচিতি, প্রাথমিক আবাসস্থল, বিভিন্ন জাত সম্পর্কে আলোচনা করা হলো। পরের পার্টে গোল্ডফিসের বিভিন্ন রোগ সম্পর্কে আলোচনা করা হবে।

আশা করি এই লেখা পড়ে আপনাদের উপকারে আসবে। আমাদের সাথেই থাকবেন। আপনাদের মূল্যবান মতামত কমেন্ট সেকশনে লিখতে পারেন বিনা সংকোচে।

ধন্যবাদ।


লেখকঃ আরাফাত ইদ্রিস পরশ, একসময় পেশা শিক্ষকতা থাকলেও বর্তমানে শখটাকেই পেশা হিসেবে নিয়েছেন। জড়িয়ে গেছেন একুরিয়ামের রঙ্গিন মাছের জগতে। তার ফেইসবুক পেইজঃ Jashore Aqua Zone থেকেই ব্যাবসা পরিচালনা করছেন।

মতামত দিনঃ